প্রবাল প্রতিবেদক : কক্সবাজারে সদ্য যোগ দেওয়া পুলিশ সুপার (এসপি) মো. হাসানুজ্জামানের করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। শুক্রবার কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ ল্যাবে তাঁর নমুনা পরীক্ষায় করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়। বর্তমানে তিনি বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন। পুলিশ সুপার হিসেবে  মো. হাসানুজ্জামান কক্সবাজারে যোগদান করেন গত ২৩ সেপ্টেম্বর।

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অনুপম বড়ুয়া বলেন, করোনাভাইরাসে সংক্রমণের উপসর্গ দেখা দিলে গত বৃহস্পতিবার এসপি হাসানুজ্জামানের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। শুক্রবার নমুনা পরীক্ষার ফলাফলে করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়। তাঁর শারীরিক অবস্থা ভালো আছে।

গত ৩১ জুলাই রাতে টেকনাফের মেরিন ড্রাইভ সড়কের শামলাপুর তল্লাশিচৌকিতে পুলিশের গুলিতে নিহত হন অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা সিনহা মো. রাশেদ খান। এ ঘটনার পর পুলিশের কর্মকাণ্ড নিয়ে বিভিন্ন মহলে সমালোচনা-প্রতিক্রিয়া শুরু হয়। জেলা পুলিশকে ঢেলে সাজাতে কক্সবাজারের সব পুলিশ সদস্যকে অন্যত্র বদলির সিদ্ধান্ত নেয় পুলিশের সদর দপ্তর। পরে কক্সবাজারের এসপি এবিএম মাসুদ হোসেনকে রাজশাহীতে বদলি করা হয়। তাঁর স্থলাভিষিক্ত হন ঝিনাইদহের এসপি মো. হাসানুজ্জামান।
সব মিলিয়ে চার দফায় কক্সবাজার থেকে ১ হাজার ৪৮৭ সদস্যকে বদলি করা হয়। এর মধ্যে এসপি থেকে সহকারী পুলিশ সুপার পদমর্যাদার কর্মকর্তা আছেন আটজন, পরিদর্শক ৫৩ জন, উপপরিদর্শক (এসআই) ১৯৩ জন, সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) ১৮৩ জন, সার্জেন্ট ৮ জন, টিএসআই ৫ জন, নায়েক ৪৬ জন ও ১ হাজার কনস্টেবল। আর কক্সবাজারে পদায়ন করা হয়েছে ১ হাজার ৫০৭ জনকে।