মাদককাণ্ডে দীপিকা পাড়ুকোনকে টানা সাড়ে ৫ ঘণ্টা জেরা করেছে এনসিবি। লাগাতার জেরার মুখে প্রায় তিনবার কেঁদে ফেলেন দীপিকা।
ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, দীপিকা যখন কাঁদতে শুরু করেন, তখন এনসিব ‘র কর্মকর্তারা তাকে সাফ জানিয়ে দেন, কান্নাকাটি করে এখানে ‘চিড়া ভিজবে না’। ইমোশন নিয়ে খেলার চেষ্টা করবেন না। যা জিজ্ঞেসা করা হবে ‘সত্যি কথা বলবেন’।
জেরার মুখে মাদক সংক্রান্ত হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট এর কথা মেনে নিয়েছেন দীপিকা পাড়ুকোন। হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের অ্যাডমিন দীপিকাই ছিলেন বলে জানিয়েছেন তার ম্যানেজার কারিশ্মা প্রকাশ।
এর আগে ম্যানেজার কারিশ্মা প্রকাশের সঙ্গে দীপিকার যে হোয়াটসঅ্যাপ প্রকাশ্যে এসেছিলো, তাতে অভিনেত্রীকে  ‘মাল’, ‘হাশ’, ‘গাঁজা এই শব্দগুলি ব্যবহার করতে দেখা গিয়েছিলো। প্রসঙ্গত ৬ দীপিকা ও তার ম্যানেজারকে একসঙ্গে বসিয়ে জেরা করে এনসিবি। তাদের দুজনের কথাবার্তা অসঙ্গতি রয়েছে বলে জানা যায়।