করোনাভাইরাসের প্রকোপ কমে আসায় ভারতের রাজ্যগুলোয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলতে শুরু করেছে। তবে এর মধ্যে কেরালা রাজ্যের কেরালার মালাপ্পুরম জেলায় স্কুল খোলার পর দুটি সরকারি স্কুলের ১৯২ জন শিক্ষার্থী করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। এ ছাড়া ৭২ জন শিক্ষক-কর্মীও আক্রান্ত হয়েছেন। এ জন্য স্কুল দুটি বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

দিন কয়েক আগেই কেরালায় দশম-দ্বাদশের শিক্ষার্থীদের জন্য খুলে দেওয়া হয় স্কুল। জেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. কে সাকেনা এনডিটিভিকে জানিয়েছেন, ‘একজন ছাত্রের শরীরে করোনার খোঁজ মিলতেই কন্ট্যাক্ট ট্রেসিংয়ের কারণেই বাকি শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মীদের টেস্ট করানো হয়েছিল। পাশাপাশি দুটি স্কুলের শিক্ষার্থীদের সকলেরই করোনা টেস্ট করা হয়েছিল। কীভাবে এতজনের শরীরে করোনা ছড়িয়ে পড়ল, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’

যে কেরালার করোনা মোকাবিলার ধরন সারা পৃথিবীতে সাড়া ফেলেছিল, সেই রাজ্যের এমন পরিস্থিতিতে বিশেষজ্ঞরা সাধারণ মানুষের যথাযথ সতর্কতা না মানাকেই দায়ী করছেন। যদিও গত বছর জানুয়ারি মাসে কেরালাতেই দেশের প্রথম করোনা রোগীর খোঁজ মিলেছিল। তারপর সাফল্য এসেছিল। কিন্তু ক্রমেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যায়। বর্তমানে কেরালায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ১০ লাখের কাছাকাছি।