সাবেক মিস ইন্ডিয়া, বলিউড অভিনেত্রী সেলিনা জেটলি। ২০০১ সালে মিস ইউনিভার্স প্রতিযোগিতায় হয়েছিলেন চতুর্থ রানারআপ, যেখানে ক্রাউন পরার পর দর্শকসারিতে বসা বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প সেলিনাসহ জয়ীদের দাঁড়িয়ে করতালির মাধ্যমে সম্মান দেখিয়েছিলেন।

২০০৩ সালে ‘জানাশিন’ ছবির মাধ্যমে বলিউডে নায়িকা হিসেবে অভিষেক হওয়া সেলিনা পরবর্তীতে নো এন্ট্রি, গোলমাল রিটার্নস্ এর মতো সুপারহিট ছাড়াও বহু ছবিতে অভিনয় করেন। সালমান খান, অক্ষয় কুমার, অনিল কাপুর, অজয় দেবগন, অনুপম খের, জ্যাকি শ্রফ, কারিনা কাপুর, টাবু, বিপাশা বসু, বিদ্যা বালান, লারা দত্ত, শক্তি কাপুরের মতো নামিদামি অভিনেতাদের সঙ্গে অভিনয় করেছেন। বলিউড ইতিহাসের অন্যতম সাহসী নায়িকা ধরা হয় সেলিনা জেটলিকে। প্রায় প্রতিটি ছবিতেই আবেদনময়ী রূপে দেখা গেছে তাকে। এছাড়া তার মোহময়ী চোখের জাদুতে কাবু ছিল কোটি ভক্ত। ১৯৮১ সালে সেলিনার জন্ম আফগানিস্তানের কাবুলে।

সেলিনার বাবা ভি কে জেটলি ছিলেন ভারতীয় সেনাবাহিনীর কর্নেল। ২০১১ সালে অস্ট্রেলীয় ব্যবসায়ী পিটার হগকে বিয়ে করে অস্ট্রিয়াতে সংসার শুরু করেন সেলিনা। ২০১২ সালে সেলিনাকে শেষবারের মতো ছবিতে দেখা গিয়েছিল। দীর্ঘ ৯ বছর পর বড়পর্দায় ফিরেছেন সেলিনা। এ ছাড়াও বিভিন্ন জাতীয় ইস্যুতে নিয়মিত কথা বলছেন হিন্দুস্তান টাইমস, টাইমস অফ ইন্ডিয়াসহ ভারতের বিভিন্ন গণমাধ্যমের সঙ্গে। সম্প্রতি অস্ট্রিয়া থেকে ফোনে মানবজমিন প্রতিনিধি তারিক চয়নের সঙ্গে কথা বলেন সেলিনা জেটলি। বাংলাদেশের কোনো গণমাধ্যমকে এই প্রথম একান্ত সাক্ষাৎকার দিলেন বর্তমানে মানবাধিকার বিষয়ে জাতিসংঘের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে কাজ করা সেলিনা: