বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসে দেশে আরও ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে সাত হাজার ৫০৯ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে এক হাজার ১৮১ জনের শরীরে। এ নিয়ে মোট পাঁচ লাখ ১১ হাজার ২৬১ জন শনাক্ত হলো।

মঙ্গলবার বিকালে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত সংবাদ ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানানো হয়।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন এক হাজার ২৪৫ জন। সুস্থতার মোট সংখ্যা দাঁড়িয়েছে চার লাখ ৫৪ হাজার ৫৬৩ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ হাজার ৫৮৮টি নমুনা পরীক্ষা করে এক হাজার ১৮১ জন শনাক্ত হয়।

মারা যাওয়া ৩০ জনের মধ্যে ১৯ পুরুষ, আর ১১ জন নারী। এদের প্রত্যেকেরই মৃত্যু হয়েছে হাসপাতালে। সর্বোচ্চ ১৯ জনের মৃত্যু হয় ঢাকায়।

আজ শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৮ দশমিক ৯১ শতাংশ। গতকাল সুস্থতার হার ছিল ৮৮ দশমিক ৮৭ শতাংশ। গতকালের চেয়ে আজ সুস্থতার হার দশমিক ০৪ শতাংশ বেশি।

দেশে এ পর্যন্ত মোট ৩১ লাখ ৯৯ হাজার ১১৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় পাঁচ লাখ ১১ হাজার ২৬১ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। মোট পরীক্ষার ২৫ লাখ ৩৭ হাজার ৬০৮টি হয়েছে সরকারি এবং ছয় লাখ ৬১ হাজার ৫০৭টি হয়েছে বেসরকারি ব্যবস্থাপনায়। মোট পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৫ দশমিক ৯৮ শতাংশ। গতকাল পর্যন্ত এই হার ছিল ১৬ দশমিক ০২ শতাংশ।

গত বছরের ৩১ ডিসেম্বর চীনের উহানে প্রথম করোনা শনাক্ত হয়। পরে এই ভাইরাসটি সারা বিশ্বকে গ্রাস করে। বাংলাদেশে ৮ মার্চ প্রথম করোনা শনাক্ত হয়। আর মৃত্যুর খবর আসে ১৮ মার্চ।

করোনাভাইরাসে বিশ্বের ২১৫টি দেশ ও অঞ্চলে এখন পর্যন্ত আট কোটি ১১ লাখের বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে মারা গেছেন ১৭ লাখ ৭৩ হাজারের বেশি মানুষ। তবে সুস্থ হয়ে ঘরে ফিরেছেন পাঁচ কোটি ৭৩ লাখের বেশি।