মার্চ থেকে বন্ধ থাকার পর প্রথমবারের মতো রবিবার থেকে শুরু হয়েছে ওমরাহ পালন। ওমরাহ পালনকারীদের জন্য খুলে দেয়া হয়েছে মক্কা-মদিনা। এখন প্রতিদিন ছয় হাজার মুসলিমকে পবিত্র মসজিদে ঢোকার অনুমতি দেয়া হচ্ছে। আপাতত সৌদির মুসলিমরা এই সুযোগ পাচ্ছেন। ১ নভেম্বর থেকে বিশ্বের অন্য দেশের মুসলিমরাও পাবেন।

সৌদির হজ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ‘সতর্কতামূলক ব্যবস্থা বজায় রেখে বিশ্বাসের আবহে ভক্তিপূর্ণ হৃদয়ে প্রথম ব্যাচে মুসলিমরা দুই পবিত্র মসজিদে প্রবেশ করলেন।’ খবর ডয়চে ভেলের।

প্রথম পর্যায়ে আপাতত শুধু ছয় হাজার সৌদি নাগরিকই মক্কার মসজিদে ঢুকতে পারবেন। ১৮ অক্টোবর থেকে এই সংখ্যা বাড়িয়ে করা হবে ১৫ হাজার। ১ নভেম্বর থেকে অন্য দেশের মুসলিমদের ঢুকতে দেয়া হবে। তখন প্রতিদিন ২০ হাজার জনকে মসজিদে ঢুকতে দেয়া হবে।

আগে থেকে অনলাইনে আবেদন করে ঢোকার জন্য সময় নিতে হবে। ভিতরে তিন ঘণ্টা থাকা যাবে। কাবা শরিফ ছোঁয়া যাবে না। দূরত্ব বজায় রেখেই কাবা শরিফ প্রদক্ষিণ করতে হবে।

যারা ঢুকবেন, তাদের সঙ্গে একজন করে স্বাস্থ্যকর্মী থাকবেন। থার্মাল সেন্সর থাকবে। জরুরি প্রয়োজনে চিকিৎসক দলও থাকবে। দিনের মধ্যে একাধিকবার মসজিদ পরিষ্কার ও জীবাণুশূন্য করা হবে।