ইয়াবাসহ ৫৩৫ কোটি টাকার বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্য ধ্বংস করেছে বিজিবি। বুধবার (২০ জানুয়ারী) বেলা ১১ টায় কক্সবাজার বিজিবির রিজিয়ন সদর দপ্তর মাঠে এসব মাদকদ্রব্য ধ্বংস করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘মাদক নিমূর্লে বিজিবি, র‌্যাব, পুলিশসহ বিভিন্ন আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন। যার সফলতা এটি। মাদক কোন ব্যক্তি বা গোষ্ঠীর সমস্যা নয়। এটা জাতীয় সমস্যা। একজন মাদকাসক্ত ব্যক্তি একটি পরিবারকে ধ্বংস করে দেয়। ওই মাদকসেবীর কারণে ওই পরিবারটি সমাজের কোথাও মাথা তুলে দাঁড়াতে পারে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে দেশ। কিন্তু দেশের যে উন্নয়ন সেই উন্নয়নকে বাধাগ্রস্ত করবে এই মাদক। আমরা যদি এই উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে চাই, তবে সমাজ থেকে মাদককে চিরতরে নির্মূল করতে হবে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘জঙ্গীবাদ ও সন্ত্রাস আমরা দেশ থেকে বিতাড়িত করতে সক্ষম হয়েছি। মাদকের বিরুদ্ধেও যথাযথ পদক্ষেপ আমরা নিচ্ছি। মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। পাশাপাশি মাদকের বিরুদ্ধে সচেতনতা সৃষ্টিতে নানা উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে। তাই এখনই সময় একযোগে মাদক প্রতিরোধে কাজ করার।’

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বিজিবি কক্সবাজার রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সাজিদুর রহমান। এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পুলিশের মহাপরিদর্শক বেনজির আহমেদ, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা বিভাগের সচিব মো. শহিদুজ্জামান ও বিজিবি অতিরিক্ত মহাপরিচালক খায়রুল কবির প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে বিজিবি কক্সবাজার রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সাজিদুর রহমান বলেন, মাদকের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে জিরো টলারেন্স নীতি অবলম্বন করছে বিজিবি। যার অংশ হিসেবে মাদক পাচার বন্ধে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে ইতোমধ্যে।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ, র‌্যাব—১৫ এর উইং কমান্ডার আজিম আহমেদ, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক এড. সিরাজুল ইসলাম, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এড. ফরিদুল ইসলাম চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদ পৌর মেয়র মুজিবুর রহমান, সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি, আশেক উল্লাহ রফিক এমপি, জাফর আলম এমপি, কানিজ ফাতেমা মোস্তাক এমপি, কক্সবাজার উন্নয়ন কতৃর্পক্ষের চেয়ারম্যান লে. কর্নেল (অব.) ফোরকান আহমদ, কক্সবাজার প্রেস ক্লাবের সভাপতি আবু তাহের ও সাধারণ সম্পাদক মুজিবুল ইসলাম ও কক্সবাজার সাংবাদিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক জাহেদ সরওয়ার সোহেল প্রমূখ।