সাতক্ষীরা মেডিকেলে চান্স পাওয়া মারুফার পড়ালেখার দায়িত্ব নিলেন সাতক্ষীরার জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ন কবির। রবিবার (১০ এপ্রিল) দুপুরে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসক হুমায়ুন কবিরের সাথে সৌজন্য সাক্ষ্যাৎ করেন মারুফা ও তার পরিবারের সদস্যরা। এসময় জেলা প্রশাসক মারুফার পরিবারের সার্বিক খোঁজখবর নেন এবং মারুফার পড়ালেখার দায়িত্ব নেন।

এসময় সাতক্ষীরা-২ ( সদর) আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি মারুফার হাতে শুভেচ্ছা উপহার তুলে দেন।

জেলা প্রশাসকের সাথে মারুফা খাতুনের সৌজন্য সাক্ষ্যাতের সময় উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. নজরুল ইসলাম, সাতক্ষীরা জেলা পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান, তালা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রশান্ত কুমার বিশ্বাস, তালা মহিলা কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ আব্দুর রহমান, তালা মহিলা কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ সাইফুল ইসলাম, মারুফার পিতা আজিত বিশ্বাস, মা তাসলিমা বেগম প্রমুখ।

তালা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রশান্ত কুমার বিশ্বাস জানান, জেলা প্রশাসকের সাথে মারুফা ও তার পরিবারের সদস্যরা দেখা করেছেন। জেলা প্রশাসক হিসেবে তিনি মেডিকেলে পড়াকালীন মারুফার সকল খরচ বহনের আশ্বাস দেন।

উল্লেখ্য, মারুফা এমবিবিএস ২০২১-২০২২ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি পরীক্ষায় ৭৪ স্কোর নিয়ে ৩৫৩৪ মেরিট পজিশনে সাতক্ষীরা মেডিকেলে ভর্তির সুযোগ পেয়েছেন।

কিন্তু দারিদ্রতার কারণে তার ভর্তি ও লেখাপড়ার খরচ নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়ে পরিবার। তালার জেয়ালা-নলতা গ্রামের মৎস্যজীবী বাবা আজিত বিশ্বাস ও গৃহিণী তাসলিমা বেগমে তিন সন্তানের মধ্যে মারুফা বড়। তিনি তালা মহিলা কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিকে বিজ্ঞান বিভাগ থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছিলেন।